Logo
শিরেোনাম ::
রাজশাহীতে নির্মাণ করা হচ্ছে শেখ রাসেল শিশুপার্ক কঠোর লকডাউন অমান্য করে অবৈধ মেলা- ১ লাখ টাকা জরিমানা লালমাইয়ে ভুল চিকিৎসায় নারীর গর্ভপাত বঙ্গবন্ধু সাফারি পার্ক হচ্ছে মৌলভীবাজার জেলার জুড়ী উপজেলায় সংসদ সদস্য জনাব শাহে আলম এর জন্মদিন উপলক্ষে ছাত্রলীগের দোয়া মাহফিল স্বাস্থ্যবিধি মেনে “প্রবাসী সমাজ কল্যাণ তহবিল” এর ঈদ সামগ্রী বিতরণ জৈন্তাপুর, গোয়াইনঘাট ও কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা বাসীকে ঈদ-উল-আযহার শুভেচ্ছা জানান এড. মাহফুজুর রহমান মোঃ নাসির উদ্দিনের পক্ষ থেকে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের কাছে ৭০০০ মাক্স উপহার গোমস্তাপুরে জিনিয়াস ওয়েলফেয়ার এ্যাসোসিয়েশন এর আয়োজনে করোনা টিকা রেজিস্ট্রেশনের ফ্রি ক্যাম্পেইন রাজশাহী ইসলামী ব্যাংক মেডিকেল কলেজ শাখার মাস্ক বিতরণ কর্মসূচী

রঙ্গের শহর কক্সবাজার এখন বিরানভূমি

রিপোর্টারের নাম / ৩৮৫ বার
আপডেট সময় : রবিবার, ৩১ মে, ২০২০

রঙ্গের শহর কক্সবাজার এখন বিরানভূমি  লেখকঃ রুহুল কাদের মানিক ।

সারা পৃথিবীর সাডা জাগানো যে কটি শহর তার মধ্যে অন্যতম ককসবাজার । শহরের প্রতিটি গলি যেন ঝলমলে রঙ্গ ছটিয়ে থাকে । এখনকার আলো বাতসে মানুষের মন ভাল করার দাবাই থাকে । সৈকতের বালুকণার সাথে সাগরের লোনাজল মন উতলিয়ে দেয়। সকল বয়সের মানুষের মধ্যে তখন বিরাজমান থাকে এক না বলা রৌদ্র তীপ্ততা । সঙ্খাহীন ভাবে ঘুরে বেডানোর মধ্যে খুজে বেডায় নতুন সঙ্গ অথবা আরো বেশী বিভোর হয়ে ঘুরে বেডানোর উপলক্ষে ।এখানে মন চাই ঘুরতে
বাধাহীনভাবে । কখনো সাগর , কখনো বা পাহাডি ঝর্ণার সাথে মিতালি করা মন বার বার ভূলে যেতে চাই নিজেকে ।কখনো বা মন দেওয়া নেওয়ার সাধ জাগ । মনে হয় ঝাউবিথীর আডালে কারো সাথে দেওলিয়া মনে রাত জেগে আড্ডার আসর জমাতে । দু দু বালি চডে পূর্ণিমার রাত কাটাতে । এখানে মানুষের মন বদলে যায় । বুডো জোয়ানের এখানে কোন পার্থক্য মিলে না । সাগরের বিস্তৃর্ণ জলরাশি যেমন কারো একার নয় তেমনি উপভোগের বিষযাদি ও সবার সমান। এই শহর রঙ্গের শহর । এই শহর ভোগবিলাসের শহর ।
এখানে পাঁচতারকা মানের হোটেলের আলোর ঝলকানিতে ফুটপাতের বেশ্যাদের দৌরাত্ম্য দেখা যায় । শহরের তরুণরা রাত জেগে চরুট টানে যা বাতসে ভেসে বেডায় ।মদের দোকানের অভাব মনে হলেও হাতের মুটোই মদ পাবেন । চাই কারো সাথে রাত জাগানো অথবা মদের নেশায় মাতাল হয়ে রাত কাটাতে পারেন । এখানে সুইমিং পুলের রঙ্গিন জলে গা ভিজাতে অথবা সাগরের লোনাজলে গোসল করতে পয়সা গুনতে হয় না কিন্তু সেবা নিতে পয়সা দিতে হয়।
তাছাড়া প্রকৃতি প্রেমীদের জন্য কি নেই এই শহরে । আপনি পাহাডি ঝর্ণার সাথে সাগরের মিতালি কোথাও পাবে না । লাল কাকডার নাম শুনেছেন তবে তাদের দেখা পেতে ককসবাজার আসতে হবে । এখানে নীলতিমির সাথে ডলফিন সাগর পাডে দাপিয়ে বেডানোর দৃশ্য পৃথিবীতে বিরল । পাটোয়ার টেকের সাথে হরিণীর বিচরণ , ইনানীর পাথর আর সেন্টমার্টিনে জীবাশ্ম যেন তাদের জন্য গবেষণার বিষয় । এখানে ঝাউবিথীর রহস্য নিয়ে কাজ করলে উদ্ভিদ বিজ্ঞানের আলাদা শাখা হবে । সামুদ্রিক কাছিমের গল্প সেতো আরো বিশাল ব্যাপার ।
এই শহরের রন্দ্রে রন্দ্রে ছিল রঙ্গের মেলা । আজ সেই শহরের সাগর পাডে কেউ নেই। বেওয়ারীশ কুকুরের আনাগুনা ও চোখে পডে না । যেন এক বিরানভূমি ।

লেখকঃ রুহুল কাদের মানিক ।
বি ,এস-সি অনার্স এম , এস-সি ।
ব্যুরো প্রধান । ককসবাজার ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
Theme Created By ThemesDealer.Com