Logo
শিরেোনাম ::
সিলেট মহানগর ছাত্রলীগের উদ্যোগে শেখ হাসিনার জন্মদিন পালিত হাটহাজারী উপজেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র ৭৫ তম জন্মদিন পালিত সংগঠক সোহেল আহমেদ একাত্তর ক্রীড়া ও সমাজকল্যাণ সংস্থা’র সহ-সভাপতি নির্বাচিত বোয়ালখালীতে ব্যবসায়ী শিবু সেন পরলোকে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালন উপলক্ষে দক্ষিণ ভূর্ষি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের প্রস্তুতি সভা মাসিক স্বাস্থ্য সচেতনতায় বটবৃক্ষের প্রথম ইভেন্ট সিলেট জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান জয়নাল আবদিনকে ইউপি সদস্য সুহেল আহমেদের শুভেচ্ছা শ্রীমঙ্গল উপজেলায় মানবতার সেবায় উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্হাপন করেছে সাতগাঁও প্রবাসী ফোরাম জাতিসংঘের ‘এসডিজি অগ্রগতি পুরষ্কার’ অর্জন করায় প্রধানমন্ত্রীকে ডুয়েট উপাচার্যের অভিনন্দন ভোলাগঞ্জ- দয়ার বাজার রাস্তা সংস্কারে বরাদ্দ মন্ত্রী ইমরান আহমদ কে এড. মাহফুজুর রহমানের অভিনন্দন

করোনা মহামারী ২০১৯ এবং সামাজিক সচেতনতাঃজিসান তাসফিক

প্রকৌশলী শাহনেওয়াজ খান মিলন , নির্বাহি সম্পাদক / ২৭৯ বার
আপডেট সময় : বুধবার, ২৭ মে, ২০২০

জিসান তাসফিকঃ
২০১৯ সালে চিনের উহান শহরে আবিস্কার একটি মহামারী ভাইরাস হল করোনা ভাইরাস। এর পূর্বে অনেক মহামারি রোগ হলেও করোনা ভাইরাস এর গতিপ্রকৃতি ও জিনগত পরিবর্তনের কারন আজ পৃথিবীতে এই শতাব্দীর সব থেকে বড় প্রানঘাতি ভাইরাস। নিরলসভাবে পরিশ্রম করা সত্বেও কোনো বিজ্ঞানী কিংবা গবেষক এর ওষুধ অথবা টিকা আবিষ্কার করতে পারে নি। তবে থেমে না থেকে এখনো নিরন্তর প্রচেষ্টা চলমান আছে।

আমাদের দেশের জনসংখ্যার ঘনত্ব অনেক। এর মধ্যে খেটে খাওয়া মানুষগুলোকে বাসা দিয়ে বাহিরে এসে কাজ করতে হয়। এই সব মানুষের সাস্থ্য অবস্থা ও করোনা আক্রান্ত হলে এর প্রতিরোধ সক্ষমতা সত্যিই চিন্তার বিষয়। প্রত্যেক ব্যক্তি যদি নিজ কার্যে সামাজিক সচেতনতা না বজায় রেখে চলে তাহলে খুবই নিকট সময়ে করোনা আমাদের দেশে মহামারী হয়ে যাবে।

এই রোগের মহামারি হবার অন্যতম কারণ এর ছোয়াছে বৈশিষ্ট্য। একজন ভাইরাস বহন কারি ব্যক্তির সংস্পর্শে আসা অন্য ব্যক্তির শরীরে এই ভাইরাস প্রবেশ করে। সব থেকে আর্কষণীর ব্যাপার হল আপনার শরীরে এই ভাইরাস প্রবেশ করার ১৪ দিন পরে এর লক্ষন প্রকাশ করে। এর পূর্বে সে বংশ বৃদ্ধি করে আপনার শরীরে নিজের অবস্থান দৃঢ় করে। অর্থাৎ আপনি এই ১৪ দিনে জানবেনও না আপনি এই ভাইরাসের বাহক এবং এবং আপনার মাধ্যমে অন্য মানুষজন ও আক্রান্ত হচ্ছে। কিন্তু এরকি প্রতিরোধ সম্ভব নয়??? অবশ্যই সম্ভব। আপনার ও আপনার আশেপাশে অবস্থিত মানুষ জনের সচেতনতাই পারে এই মহামারী থেকে বাচাতে। তাহলে আসুন জেনে নিন কিভাবে সচেতন হওয়া :

১ প্রথমেই আমরা সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখি।
২ অযথা ঘোরাফেরা বন্ধ করি ও আড্ডা দেওয়া বন্ধ করি।
৩ মুখে মাক্স ও হাতে গ্লোফ্স পরে বাহিরে গমন করি।
৪ বাজার থেকে প্রাপ্ত জিনিস পত্রকে ভালো ভাবে ধৌত করি।
৫ বাসা থেকে বাহিরে অথবা বাহিরে থেকে বাসার গমনের ক্ষেত্রে হ্যান স্যানিটাইজার ও হ্যান্ডওয়াস ব্যবহার করি।
৬ সর্দি -হাসি কাশি, জর,বুক ব্যাথা থাকলে নিকটবর্তী সাস্থ্যকেন্দ্র অথবা প্রশাসনের সাহায্যে নেই।
৭ সরকারি দিক নির্দেশনা মেনে চলি।
৮ অপ্রত্যাশিত ঘটনা হলে প্রশাসনকে অবহিত করি।
৯ নিজে সচেতন থাকি এবং অন্যকে সচেতন রাখি।
১০ শেষ উপদেশ হল আপনি আমি আমরা সবাই দেশের সম্পদ ও জনশক্তি, সুতরাং সবাইকে দেখা আমাদের দায়িত্ব। বিপদে-আপদে সবাই সবার দাড়াই ও দেশকে রক্ষা করি।
লেখক
শিক্ষার্থী, আইন বিভাগ,
বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
Theme Created By ThemesDealer.Com